দুই সন্তান রেখে প্রেমিকের সঙ্গে উধাও প্রবাসীর স্ত্রী

ফরিদপুরের সালথা উপজেলায় সাহিদা বেগম নামে এক ওমান প্রবাসীর স্ত্রী দুই সন্তান রেখে প্রেমিকের সঙ্গে উধাও হয়েছেন।
মঙ্গলবার (৪ অক্টোবর) উপজেলার মাঝারদিয়া ইউনিয়নের কুমারপট্টি গ্রামের এ ঘটনা।

সাহিদার ভাই লিটু মোল্যা বুধবার এ ঘটনায় সালথা থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। গত চার দিনেও তার কোনো সন্ধান পাওয়া যায়নি।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার সোনাপুর ইউনিয়নের নটখোলা গ্রামের আলম মোল্যার মেয়ে সাহিদা বেগমের (৩৫) সঙ্গে প্রায় ১৫ বছর আগে

মাঝারদিয়ার কুমারপট্টি গ্রামের কুদ্দুস মাতুব্বরের ছেলে ইমরান মাতুব্বরের (৪০) বিয়ে হয়। তাদের ঘরে সজিব মাতুব্বর (১৪) ও সোয়াইব মাতুব্বর (৫) নামে দুই ছেলে সন্তান রয়েছে। ইমরান মাতুব্বর আড়াই বছর আগে ওমানে যান।

স্বামী বিদেশ থাকার সুবাদে প্রতিবেশী ওসমান বেপারীর ছেলে কৃষক আলম বেপারীর (২৫) সঙ্গে বিভিন্ন সময়ে প্রেমের সখ্যতা গড়ে ওঠে সাহিদা বেগমের। মঙ্গলবার সাহিদা বেগম স্বামীর বাড়ি থেকে বেরিয়ে আর ফিরে আসেননি। তার ঘরছাড়ার ব্যাপারে আলম বেপারীর দিকেই অভিযোগ তুলছে প্রতিবেশীরা।

এ বিষয়ে জানতে আলম বেপারীর বাড়িতে খোঁজ নিতে গেলে তাকে পাওয়া যায়নি। মোবাইল ফোনও বন্ধ পাওয়া যায়।
তদন্তকারী কর্মকর্তা সালথা থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আবদুল বাছেদ বলেন,

আলমের পরিবার তাদের ছেলে ও ওই নারীকে উদ্ধার করে দেওয়ার আশ্বাস দিয়ে সময় চেয়েছেন। তাদের উদ্ধারের পর আইনগত বিষয়টি দেখা যাবে।
সূত্র আর টিভি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *