কাজী হায়াৎের লা”শ আসবে এফডিসিতে, পরিচালকরা গোসল করাবে’

কাজী হায়াৎের লা”শ আসবে এফডিসিতে, পরিচালকরা গোসল করাবে’চলচ্চিত্র পরিচালক হিসেবে গত ৪২ বছর ধরে কাজ করছেন কাজী হায়াৎ। চার দশকের বেশী সময়ের ক্যারিয়ারে কিংবদন্তী এই চিত্রপরিচালক উপহার দিয়েছেন দায়ী কে, যন্ত্রণা, দাঙ্গা, লুটতরাজ, আম্মাজান, কষ্ট, বর্তমান, ইতিহাস, বীরের মতো সিনেমা।

 

এই সময়ে এসে কাজী হায়াত বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছেন। ১৫ বছর আগে তার প্রথম ওপেন হার্ট সার্জারি করা হয়েছিল। বছর দুয়েক আগে আমেরিকায় চিকিৎসা নিতে গিয়েছিলেন কাজী হায়াৎ। মাঝখানে কিছুটা সুস্থ হলেও বর্তমানে খুব ভালো নেই তিনি। গেল সপ্তাহেও হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। তার হার্টে রিং পরানো ছয়টি।

 

কাজী হায়াতের কথা, ‘ঢাকার বড় একটি হাসতাপাতের ডাক্তার বলেছেন তাদের কিছুই করার নেই। আল্লাহ ভরসা। কাজেই সবাই আমার জন্য দোয়া করবেন। যতদিন বাঁচব সিনেমার সঙ্গে থাকবো। এই সিনেমাই আজকে আমাকে কাজী হায়াৎ বানিয়েছে।’

 

অসুস্থ শরীর নিয়েও বুধবার এফডিসিতে পরিচালক সমিতির ৪০ বছর পূর্তিতে এসেছিলেন কাজী হায়াৎ। ৭৪ বছর বয়সী বর্ষীয়ান এই চিত্রপরিচালক আবেগতাড়িত কণ্ঠে বলেন, মারুফকে (ছেলে) বলেছি আমার লাশ আসবে এফডিসি, পরিচালকরা গোসল করাবে। দাফন হবে নিজের গ্রামে।

 

কাজী হায়াত বলেন, দেশ স্বাধীন হয়েছে ৫০ বছর এবং আমি চলচ্চিত্র পরিচালনা করছি ৪২ বছর। এই ৪২ বছরে আমি ৫০টি মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমার পরিচালক। এরমধ্যে সেন্সর বোর্ড থেকে আমার ২৬ টি সিনেমা নিষিদ্ধ করতে চেয়েছিল। তখন ছুটে এসেছিলাম পরিচালক সমিতিতে। এই সমিতি আমার পক্ষে অনেক সময় এগিয়ে গেছে। আমি সিনেমাগুলো মুক্তি দিতে পেরেছি।

 

কাজী হায়াতের পরিচালনায় সর্বশেষ মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা ‘বীর’। সুপারস্টার শাকিব খানের নিজস্ব প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ‘এসকে ফিল্মস’র ব্যানারে ২০২০ সালের ভালোবাসা দিবসে মুক্তি পেয়েছিল। বর্তমানে সরকারী অনুদানে ‘জয় বাংলা’ নামে একটি সিনেমা পরিচালনা করছেন কাজী হায়াৎ। মুনতাসির মামুনের উপন্যাস অবলম্বনে সিনেমাটির বেশীরভাগ শুটিং শেষ।

 

ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থানের পূর্বের সময় থেকে একাত্তরের ১৬ ডিসেম্বরের দিন পর্যন্ত সময় উঠে আসছে কাজী হায়াতের ‘জয় বাংলা’ সিনেমায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *